বাংলাদেশ টাইম

প্রচ্ছদ» দেশের খবর »নৌকায় ভোট চাইতে রাজশাহী যাচ্ছেন শেখ হাসিনা
নৌকায় ভোট চাইতে রাজশাহী যাচ্ছেন শেখ হাসিনা

Thursday, 22 February, 2018 02:37pm  
A-
A+
নৌকায় ভোট চাইতে রাজশাহী যাচ্ছেন শেখ হাসিনা
বাংলাদেশ টাইম : নৌকায় ভোট চাইতে আওয়ামী লীগ সভাপতি ও প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা বৃহস্পতিবার (২২ ফেব্রুয়ারি) রাজশাহী সফরে আসছেন। পাশাপাশি রাজশাহীবাসীর জন্য নিয়ে আসছেন ৩০টিরও বেশি উপহার। প্রধানমন্ত্রীর এই সফর ঘিরে রাজশাহীতে এখন চলছে সাজ-সাজ রব। এই সফর উপলক্ষে রাজশাহী জেলা, মহানগর আওয়ামী লীগ ব্যাপক প্রস্তুতি গ্রহণ করেছে। দলের কেন্দ্রীয় নেতারা এসব প্রস্তুতি দেখভাল করছেন। এরই মধ্যে সাজিয়ে তোলা হয়েছে পুরো শহর। শহরের বিভিন্ন সড়কে নির্মাণ করা হয়েছে অসংখ্য তোরণ। আছে রঙ-বেরঙের ব্যানার-ফেস্টুন। তুলে ধরা হয়েছে সরকারের উন্নরায়নমূলক কর্মকাণ্ড।

প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনাকে বরণ করে নিতে রাজশাহী এখন প্রস্তুত। শুধু রাজশাহী মহানগরী নয়, আশপাশের গ্রামেও ছড়িয়ে পড়েছে এই উৎসবের আমেজ। অবশ্যই, শেখ হাসিনাও খালি হাতে আসছেন না। বেশকিছু উন্নয়ন প্রকল্পের উদ্বোধন উন্নয়ন প্রকল্পের ভিত্তিপ্রস্তর স্থাপন করবেন তিনি। এ দিন বেলা সাড়ে ১১টায় তিনি নাটোরের কাদিরাবাদ সেনানিবাসে সেনাবাহিনীর ইঞ্জিনিয়ার কোরের ষষ্ঠ কোর পুনর্মিলনী অনুষ্ঠান-২০১৮-এ যোগ দেবেন। এরপর দুপুরে যোগ দেবেন রাজশাহী জেলা ও মহানগর আওয়ামী লীগ আয়োজিত জনসভায়। সেখানে রাজশাহীবাসীর জন্যে আনা উপহার ঘোষণা করবেন এবং সরকারি মাদ্রাসা মাঠে আয়োজিত জনসভায় বক্তব্য রাখবেন। সেখানে নৌকার পক্ষে ভোট চাইবেন শেখ হাসিনা। জনসভাকে সফল করতে স্থানীয় আওয়ামী লীগের নেতাকর্মীরাও ব্যস্ত সময় পার করছেন। এর আগে তিনি ওই মাঠে ২১টি উন্নয়ন প্রকল্প উদ্বোধন ও ১০টি প্রকল্পের ভিত্তিপ্রস্তর স্থাপন করবেন। অতিরিক্ত জেলা প্রশাসক (সার্বিক) মোহাম্মদ সালাহউদ্দিন এ তথ্য নিশ্চিত করেছেন। প্রধানমন্ত্রীর জনসভা উপলক্ষে সড়কগুলো সংস্কার কাজ চলছে। পাশাপাশি চলছে পরিষ্কার-পরিচ্ছন্নতার কাজ। কোথাও কোথাও সড়কের দুই পাশে চলছে দেয়াললিখন। এছাড়া  চলছে মাইকিংও। জনসভায় বিপুল লোক সমাগম করতে কাজ করছেন দলীয় নেতারা।

এদিকে জনসভার জন্য মাঠ প্রস্তুতের কাজও এরইমধ্যে শেষ হয়েছে। মাঠজুড়ে বসানো হয়েছে মাইক। আশপাশে বসেছে সিসি ক্যামেরা। নৌকার আদলে করা হয়েছে সভামঞ্চ। রঙিন কালিতে মাঠের চারপাশে শোভা পাচ্ছে দেয়াললিখন। ইতোমধ্যে স্পেশাল সিকিউরিটি ফোর্স ও আওয়ামী লীগের কেন্দ্রীয় নেতারা মাঠ পরিদর্শন করেছেন। তারা প্রস্তুতি দেখে সন্তোষ প্রকাশ করেছেন। শহর ঘুরে দেখা যায়, রাস্তায় শোভা পাচ্ছে নৌকা প্রতীক সংবলিত বিশাল আকারের তোরণ। স্থানীয় আওয়ামী লীগের নেতাকর্মী স্থানীয় এমপি, আগামী নির্বাচনে দলের মনোনয়ন-প্রত্যাশী ও আওয়ামী লীগ ও এর সহযোগী সংগঠনের নেতারা তাদের ছবি দিয়ে এসব ব্যানার লাগিয়েছেন। সব মিলে নির্বাচনি আমেজ বিরাজ করছে রাজশাহীতে।

দলীয় প্রধানের এই সফরে স্থানীয় নেতাকর্মীরাও উচ্ছ্বসিত বলে জানিয়েছেন জেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক আসাদুজ্জামান আসাদ। তিনি বলেন, ‘নেতাকর্মীদের মধ্যে একটা জোয়ার সৃষ্টি হয়েছে। শুধু শহর নয়, জেলার প্রতিটি পৌরসভা, উপজেলা ও ইউনিয়নকে সাজিয়ে তুলেছেন নেতাকর্মীরা। তাদের এই উদ্দীপনা আগামী নির্বাচনে আওয়ামী লীগের নৌকা প্রতীকের প্রার্থীদের বিজয়ী করতে সহায়ক হবে।’ তিনি আরও বলেন, ‘এর আগে ২০১৩ সালের ৫ সেপ্টেম্বর রাজশাহীর বাগমারা ও ২০১৪ সালের ৮ ফেব্রুয়ারি চারঘাটে আওয়ামী লীগের জনসভায় যোগ দেন তিনি। সর্বশেষ গত বছরের ১৪ সেপ্টেম্বর রাজশাহীর পবায় দলীয় জনসভায় হাজির হয়েছিলেন শেখ হাসিনা। তখনও নেতাকর্মীদের মাঝে উদ্দীপনা দেখা দিয়েছিল। সেজে উঠেছিল পুরো রাজশাহী।’

জানতে চাইলে আওয়ামী লীগের সাংগঠনিক সম্পাদক খালিদ মাহমুদ চৌধুরী বলেন, ‘২২ ফেব্রুয়ারি প্রধানমন্ত্রীর জনসভাকে ঘিরে পুরো রাজশাহী মুখরিত থাকবে।’ তিনি বলেন, ‘জনসভাকে ঘিরে জনগণের দ্বারে দ্বারে গিয়ে আওয়ামী লীগ প্রচার চালিয়েছে। যেন এ জনসভার রেশ দীর্ঘদিন থাকে।’

আগামী সিটি করপোরেশন ও জাতীয় সংসদ নির্বাচন ঘিরে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার এ সফরকে অত্যন্ত গুরুত্বের সঙ্গে দেখছেন স্থানীয় আওয়ামী লীগের নেতারা। তারা বলছেন, জনসভার মাধ্যমে আওয়ামী লীগের নেতাকর্মীদের ঐক্য আরও সুসংহত হবে, যা আগামী নির্বাচনে বড় ভূমিকা রাখবে। আওয়ামী লীগের দায়িত্বপ্রাপ্ত কেন্দ্রীয় নেতা দলের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক জাহাঙ্গীর কবির নানক ও সাংগঠনিক সম্পাদক খালিদ মাহমুদ চৌধুরী কয়েক সপ্তাহ আগে থেকেই প্রধানমন্ত্রীর জনসভার প্রস্তুতির অংশ হিসেবে রাজশাহী বিভাগের চাঁপাইনবাবগঞ্জ, জয়পুরহাট, নওগাঁ, নাটোর, পাবনা, বগুড়া, রাজশাহী এবং সিরাজগঞ্জ জেলা ও এসব জেলার বিভিন্ন উপজেলায় সভা-সমাবেশ করে যাচ্ছেন।

এই ধরনের আরও পোস্ট -
   

আরও খবর

TOP